শুক্রবার , 21 সেপ্টেম্বর 2018
ব্রেকিং

ইউনেসকোয় রোহিঙ্গা বিষয়ে বাংলাদেশের প্রস্তাব উত্থাপন

জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে রোহিঙ্গা বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উত্থাপিত পাঁচ দফা প্রস্তাব ইউনেসকোর নির্বাহী পরিষদের প্ল্যানারি সেশনের সভায় পুনরায় উত্থাপন করেছে বাংলাদেশ। গতকাল (৯ অক্টোবর) অনুষ্ঠিত সভায় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মুখ্য সচিব ও ইউনেসকোর নির্বাহী পরিষদে বাংলাদেশের প্রতিনিধি ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী এই প্রস্তাব উত্থাপন করেন। 
ইউনেসকোর নির্বাহী পরিষদে বাংলাদেশের চার সদস্যের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। দলের অন্য সদস্যরা হলেন বাংলাদেশ ন্যাশনাল কমিশন ফর ইউনেসকোর সচিব মো. মনজুর হোসেন, ফ্রান্সে নিযুক্ত বাংলাদেশের ভারপ্রাপ্ত রাষ্ট্রদূত হজরত আলী খান ও দূতাবাসের ফার্স্ট সেক্রেটারি ফারহানা আহমেদ চৌধুরী। প্ল্যানারি সেশনের সভায় সভাপতিত্ব করেন ইউনেসকো নির্বাহী পরিষদের প্রেসিডেন্ট মাইকেল ওর্বস। 

সভায় কামাল আবদুল নাসের জানান, মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত হওয়া ৯ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গাকে বাংলাদেশ আশ্রয় দিয়েছে। একই সঙ্গে আশ্রিত এই রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীকে সব ধরনের মানবিক সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে চলমান সহিংসতার কারণে এসব রোহিঙ্গা বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। কয়েক বছর ধরে নির্যাতন ও সহিংসতার শিকার হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া মিয়ানমারের সব নাগরিককে সব ধরনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে সম্মানের সঙ্গে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য বাংলাদেশ এরই মধ্যে দেশটির প্রতি আহ্বান জানিয়েছে। এ ক্ষেত্রে যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহণের জন্য আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান জানান কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী।

ইউনেসকোর নির্বাহী পরিষদে বক্তব্য রাখার সময় টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্য (এসডিজি) অর্জনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপ সবিস্তারে তুলে ধরেন কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। একই সঙ্গে সন্ত্রাসবাদ ও সহিংস উগ্রবাদ মোকাবিলায় বাংলাদেশের গৃহীত পদক্ষেপ ও দৃঢ় অবস্থানও তুলে ধরেন তিনি। এ সময় তিনি এসডিজি অর্জনে বাংলাদেশের অগ্রাধিকার প্রকল্পগুলোর ওপর আলোকপাত করেন। বিশেষত বিশেষ চাহিদাসম্পন্ন শিশু, প্রতিবন্ধী, নারী এবং নৃতাত্ত্বিক ও প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নয়নে নির্ধারিত এসডিজি-৪ অর্জনে সরকারের গৃহীত প্রকল্পগুলো তুলে ধরেন তিনি।

বক্তব্যের শুরুতেই তিনি ইউনেসকোর বিদায়ী মহাপরিচালক ইরিনা বোকোভার প্রশংসা করেন। প্রসঙ্গত, মহাপরিচালক হিসেবে বোকোভার মেয়াদ শেষ হচ্ছে এ বছর। এ সপ্তাহের শেষ দিকে নির্বাহী পরিষদের চলতি সভা চলাকালেই পরবর্তী মেয়াদের জন্য মহাপরিচালক নির্বাচন করা হবে।

উল্লেখ্য, ইউনেসকোর কনভেনশন অ্যান্ড রিকোমেন্ডেশন কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয় ৪ ও ৬ অক্টোবর। ৩০টি দেশের অংশগ্রহণে গঠিত সংস্থাটির নির্বাহী পরিষদের গুরুত্বপূর্ণ এ কমিটির সভায় সভাপতিত্ব করেন কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। বিজ্ঞপ্তি

print

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.