সোমবার , 20 আগস্ট 2018
ব্রেকিং

সীমান্তে বাংলাদেশিকে হত্যার পর লাশ টেনে-হেঁচড়ে নিয়ে গেল বিএসএফ

BSFJawanattheIndia-Bangladeshborder-Reuters-640x381.jpg

মঙ্গলবার দিবাগত রাত সাড়ে ৩টার দিকে বুড়িমারী সীমান্তে ৮৪৩ নং মেইন পিলারের কাছে এ ঘটনা ঘটে। নিহত যুবকের মরদেহ টেনে-হেঁচড়ে নিয়ে গেছে বিএসএফ। এদিকে আহত আক্কাস আলীকে ভর্তি করা হয়েছে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে।

নিহত ফরিদ উদ্দিন উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের উফারমারা গ্রামের শামসুর হকের ছেলে। তাছাড়া গুলিবিদ্ধ আক্কাস আলী একই গ্রামের আব্দুল কুদুসের ছেলে বলে জানা গেছে।

রংপুর ৬১ বিজিবি ও এলাকাবাসী সূত্র জানায়, ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের কুচবিহার জেলার বিএসবাড়ি ৬১ নং বিএসএফ ক্যাম্পের সদস্যরা রাত সাড়ে ৩টার দিকে পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী সীমান্তের ৮৪৩ নং মেইন পিলারের কাছ দিয়ে বাংলাদেশি ১২ থেকে ১৫ জনের একটি দল গরু আনতে গেলে তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে বিএসএফ। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হন ওই যুবক। পরে তার মরদেহ টেনে-হেঁচড়ে তাদের ক্যাম্পে নিয়ে যায় বিএসএফ। এ সময় আক্কাস আলী গুলিবিদ্ধ হন।

এ ঘটনায় বিজিবির পক্ষে থেকে বিএসএফকে কড়া প্রতিবাদ জানিয়ে পতাকা বৈঠকের আহ্বান জানানো হলেও বিএসএফ তাতে কোনো সাড়া দেননি।

রংপুর-৬১ বিজিবি ব্যাটালিয়নের পরিচালক মেজর মেহেদী হাসান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, নিহত বাংলাদেশি যুবকের মরদেহ ফেরত চেয়ে পত্র দেয়া হয়েছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত বিএসএফের পক্ষ থেকে কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি।

print

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.